1. nabadhara@gmail.com : Nabadhara : Nabadhara ADMIN
  2. bayzidnews@gmail.com : Bayzid Saad : Bayzid Saad
  3. bayzid.bd255@gmail.com : Bayzid Saad : Bayzid Saad
  4. : deleted-B6iY9nGV :
  5. mehadi.news@gmail.com : MEHADI HASAN : MEHADI HASAN
  6. jmitsolution24@gmail.com : support :
  7. mejbasupto@gmail.com : Mejba Rahman : Mejba Rahman
  8. : wp_update-1720111722 :
শনিবার, ২০ জুলাই ২০২৪, ০৯:৪২ পূর্বাহ্ন

লোহাগড়ায় ডিজিটাল ইউনিয়ন গড়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করলেন নৌকার মাঝি হাচান আল মামুদ

Reporter Name
  • প্রকাশিতঃ মঙ্গলবার, ২৩ নভেম্বর, ২০২১
  • ৬০৮ জন নিউজটি পড়েছেন।

মোঃ জিহাদুল ইসলাম, নড়াইলঃ

নড়াইলের লোহাগড়া উপজেলার ১০ নং কোটাকোল ইউনিয়নের নৌকার মাঝি ও ইউনিয়ন স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি হাচান আল মামুদ টিকিট নিয়ে নির্বাচনী এলাকায় ফিরেই জনগনকে ডিজিটাল ইউনিয়ন গড়ার প্রত্যয় ব্যাক্ত করেছেন। ২৩ নভেম্বর (মঙ্গলবার) টিকিট নিয়ে ঢাকা থেকে আসার খবর পেয়ে রাত সাড়ে ৮ টায় ইউনিয়নবাসী ও তৃনমূল আওয়ামিলীগ নেতাকর্মীরা তাদের যোগ্য ও ভালবাসার প্রার্থীকে সাদরে বরণ করতে শতাধিক মোটরসাইল শোভাযাত্রা করে বড়ফা ঘাটে অবস্থান করে।

এ সময় ইউনিয়নবাসী তাকে ফুলেল শুভেচ্ছাসহ করতালির মাধ্যমে তার আগমনকে স্বাগত জানিয়ে স্বতঃস্ফূর্তভাবে ভোট দিয়ে নৌকার বিজয় নিশ্চিত করার অঙ্গীকার ব্যাক্ত করেন। এলাকায় হাচান আল মামুদ দলীয় ও তার নিজ গ্রামের বিশিষ্ট ব্যাক্তিদের সাথে কুশল বিনিময় করেন এবং সকলের দোয়া প্রার্থনা করেন। তৃণমূলের নেতাকর্মীরা বলেন, শেখ হাসিনা যাকে মনোনয়ন দিয়েছে তাকেই বিজয়ী করার উদ্দেশ্যে আমরা কাজ করে যাব। আমাদের কোটাকোল ইউনিয়নে ৯০ ভাগ লোকই আওয়ামীলীগ করে। তাই ইউনিয়নের সকল নেতাকর্মী ও বিশিষ্ট জনের সাথে আলোচনা করে হাচান আল মামুদকে আমরা সিলকশনে চেয়ারম্যান বানানোর চিন্তা ভাবনা করছি। এছাড়া তারা নড়াইল-২ আসনের সাংসদ মাশরাফিকে আওয়ামীলীগের একজন ত্যাগী ও নিবেদিত প্রান কর্মী তথা একজন যোগ্য লোককে নৌকার মাঝি নির্বাচনে ভূমিকা রাখায় এবং নড়াইল জেলা কৃষকলীগের সাধারণ সম্পাদক ও কোটাকোল ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি খান জাহাঙ্গীর আলমকে হাচান মামুদের পক্ষে নির্বাচনে সহযোগিতা করার নির্দেশনা দেওয়ায় ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করেন। নৌকার মাঝি হাচান আল মামুদ সাংবাদিকদের বলেন, আমি আওয়ামীলীগ পরিবারের সন্তান। দলকে ভালবেসে বহুবার আমি হামলা ও মিথ্যা মামলার শিকার হয়ে নিঃস্ব হয়েছি। তবুও দলীয় আদর্শ থেকে বিন্দুমাত্র বিচ্যুত হইনি।

এছাড়া জেলা ও উপজেলা পর্যায়ের দলীয় নেতাকর্মীরা আমার নীতি ও আদর্শ সম্পর্কে অবগত থাকায় তারা আমাকে ভালবাসে ও মূল্যায়ন করে। এরই ধারাবাহিকতায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আমাকে ভালবেসে নৌকা প্রতীক দিয়েছেন, এর অসম্মান আমি হতে দেবনা। ইউনিয়নবাসী আমার সাথে আছে। এছাড়া তারা আমাকে চেনে ও ভালবাসে। তাদের ভালবাসাই আমাকে বিজয়ী হতে অনুপ্রেরণা যোগাবে বলে আমার বিশ্বাস। আমি বিজয়ী হয়ে প্রধানমন্ত্রীর ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার অঙ্গীকার বাস্তবায়নে কাজ করে যাব এবং এমন কোন কাজ করবোনা যাতে সাধারন জনগণ মুখ ফিরিয়ে নেয়। আমি এলাকাবাসীকে একটি ডিজিটাল ইউনিয়ন উপহার দিতে চাই।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
© All rights reserved সর্বস্বত্বঃ দেশ হাসান
Design & Developed By : JM IT SOLUTION